রাষ্ট্রায়ত্ত সংস্থার বিলগ্নিকরণের প্রতিবাদে অনির্দিষ্টকালের জন্য অনশনে বসছে আইএনটিটিইউসি

0
INTTUC sitting on hunger strike to protest state-owned mergers

পল্লব ঘোষ টাইমস বাংলা কলকাতা : রাষ্ট্রীয় ও রাষ্ট্রায়ত্ত সংস্থাগুলির বিলগ্নিকরনের কেন্দ্রীয় সরকারের সিদ্ধান্তের প্রতিবাদে তৃণমূল কংগ্রেসের শ্রমিক ইউনিয়ন আইএনটিটিইউসি আগামী ১৬ই আগস্ট থেকে কলকাতার গান্ধিমূর্তির পাদদেশে অনির্দিষ্টকালের জন্য অনশনে বসার সিদ্ধান্ত নিয়েছে। কলকাতার রানী রাসমণি রোডে শনিবার এক শ্রমিক সমাবেশে সংগঠনের সভানেত্রী সাংসদ দোলা সেন তথ্য দিয়ে অভিযোগ করেন, কেন্দ্রীয় সরকার যে ৪২ টি  রাষ্ট্রায়ত্ত সংস্থা বিলগ্নিকরণের সিদ্ধান্ত নিয়েছে তার সংখ্যাগরিষ্ঠই লাভজনক। তিনি বলেন, চিত্তরঞ্জন লোকমোটিভকে ৪৫০ টি রেল ইঞ্জিন তৈরির অর্ডার দেওয়া হলেও, তারা ৪০৩ টি করে দেখিয়েছে, অন্যদিকে সম্পূর্ণ কেন্দ্রীয় সরকারের সংস্থা বেঙ্গল কেমিকেলস গত আর্থিক বছরে ১২৫ কোটি টাকা টার্ণওভার করেছে যার মধ্যে ২৫ কোটি টাকা লাভ। বিএসএনএল সংস্থার স্থায়ী ও অস্থায়ী কর্মীরা গত ডিসেম্বর মাস থেকে বেতন পাননি বলে অভিযোগ করছেন, কিন্তু সংসদে কেন্দ্রীয় যোগাযোগ মন্ত্রী রবিশঙ্কর প্রসাদ কোনরকম নথি ছাড়াই চলতি বছরের জুন মাস পর্যন্ত বেতন দেওয়া হয়েছে বলে মিথ্যা লিখিত বয়ান দিয়েছেন বলে দোলা সেন দাবি করেন। সমাবেশে পুর ও নগর উন্নয়ন মন্ত্রী তথা কলকাতার মেয়র ফিরহাদ হাকিম অভিযোগ করেন, প্রধানমন্ত্রী ঘনিষ্ঠ শিল্পপতিদের মুনাফা পাইয়ে দিতেই কেন্দ্রীয় সরকার বিলগ্নিকরণের পথে হাটছে। জেশপ সহ অন্যান্য রাষ্ট্রায়ত্ত সংস্থার পুনরুজ্জীবনের জন্য ঐ সংস্থাগুলিকে রাজ্য সরকারের কাছে হস্তান্তরের জন্যও ফিরহাদ হাকিম প্রধানমন্ত্রীর কাছে দাবি জানান। রাজ্যের পঞ্চায়েত ও গ্রামোন্নয়ন মন্ত্রী সুব্রত মুখোপাধ্যায় অভিযোগ করেন,  রাষ্ট্রায়ত্ত সংস্থা বাড়াবার বদলে বিলগ্নিকরণ করার সিদ্ধান্ত নিয়ে কেন্দ্রীয় সরকার অপরাধ করেছে। এর প্রতিবাদে গ্রামে, গঞ্জে, শহরে ছুটে বেরিয়ে জনমত গ্রহণের দাবি জানান তিনি। সমাবেশে বি এস এন এল, অর্ডিন্যান্স ফ্যাক্টরি, রেল সহ বিভিন্ন রাষ্ট্রায়ত্ত সংস্থার আইএনটিটিইউসি ইউনিয়নের পদাধিকারী ও শ্রমিকরা উপস্থিত ছিলেন।