২০১৯ সালে ইস্রায়েল শিশু ও নারী নির্যাতনের সীমা ছাড়িয়েছে

0
Israel has exceeded the limits of child and female abuse in the 2019

নিউজডেস্ক,টাইমস্ বাংলাঃ সম্প্রতি মানবাধিকার প্রশ্নে আন্তর্জাতিক মহলে ব্যাপক সমালোচিত হয়েছে।ইহুদিবাদী ইসরাইল গত বছর অধিকৃত পশ্চিম তীরে নারী এবং শিশুসহ সাড়ে পাঁচ হাজারের বেশি ফিলিস্তিনিকে আটক করেছে। আটককারীদের মধ্যে ৮৮৯ নারী এবং ১২৮ মেয়ে এবং নারী রয়েছে বলে ফিলিস্তিনের কয়েকটি মানবাধিকার গোষ্ঠী জানিয়েছে।

এ সব মানবাধাবিকার গোষ্ঠীর মধ্যে প্যালেস্টাইন প্রিজনার্স সোসাইটি বা পিপিএসও রয়েছে। বর্তমানে ইসরাইলি নির্যাতন শিবিরিগুলিতে ৫০ জন নারী এবং ২০০ শিশুসহ প্রায় পাঁচ হাজার ফিলিস্তিনি বন্দি আটক রয়েছে।

এর মধ্যে সাড়ে চারশ ফিলিস্তিনকে বিনা অভিযোগ ও বিনা বিচারে আটক রাখা হয়েছে।  ইহুদিবাদী ইসরাইলির ভাষায় এ সব বন্দিকে কথিত ‘প্রশাসনিক আটক’ হিসেবে দেখানো হচ্ছে।  বিনা বিচার ও বিনা অভিযোগে ইসরাইল যে কোনও ফিলিস্তিনিকে প্রাথমিক ভাবে ছয়মাস আটক রাখতে পারে। অবশ্য ছয়মাস করে আটকে মেয়াদ অনির্দিষ্টকাল পর্যন্ত বাড়ান যায়।

আটক ফিলিস্তিনিদের মধ্যে ১০ ক্যান্সারের রোগী রয়েছেন। এ ছাড়া, দুইশ জন নানা রোগে আক্রান্ত হয়েছেন। সব মিলে অসুস্থ ফিলিস্তিনি বন্দির সংখ্যা প্রায় ৭০০ বলে মানবাধিকার সংস্থা পিপিএসের বিবৃতিতে উল্লেখ করা হয়।

এদিকে, নির্যাতন শিবিরগুলিতে যথাযথ চিকিৎসার অভাবে গত বছর আটক ফিলিস্তিনিদের মধ্যে পাঁচজন অকালে মারা গেছে।

তথ্যসুত্র:- পার্সটুডে